1. admin@admin.com : admin :
  2. harundesk@gmail.com : unlimitednews24 : Md Jibon
  3. unlimitednews24@gmail.com : Md Jibon : Md Jibon
  4. mdnayeem7726@gmail.com : Md Nayeem : Md Nayeem
মৌলবাদিদের ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় সাহসী ভূমিকা পালন করেন দক্ষিণ যুবলীগের রেজা - Unlimited News 24।।আনলিমিটেড নিউজ
বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ০৭:৫১ অপরাহ্ন

মৌলবাদিদের ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় সাহসী ভূমিকা পালন করেন দক্ষিণ যুবলীগের রেজা

  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ২৭ মার্চ, ২০২১

স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে রাষ্ট্রীয় সফরে আসেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। আর নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরকে কেন্দ্র করে গতকাল শুক্রবার ধর্মের নামে অপরাজনীতি অসৎ উদ্দেশ্যে ব্যাপক ষড়যন্ত্রের নীল নকশা আঁকেন মৌলবাদীরা। ব্যাপক নাশকতার পরিকল্পনায় খন্ড খন্ড আকারে মৌলবাদিদের বড় জমায়েত হয় জুম্মার নামাজে। নামাজ শেষ হওয়া মাত্র আল্লাহ হকবার ধ্বনিতে সড়কে নামতে চাইলে পুলিশ বাধা দেন। পুলিশ তাদের শান্তিপূর্ণভাবে অল্প অল্প করে বের হওয়ার আহ্বান জানালে মসজিদের ভেতর থেকে বৃষ্টির মতো ইটের টুকরো মারা হয়। দীর্ঘ ৪০মিনিট পুলিশ নিরব ভূমিকা পালন করলেও তারা থামেননি। মৌলবাদীদের ইটের আঘাতে নামাজ পড়তে আসা বহু মানুষ রক্তাক্ত হয়ে হাসপাতালে যেতে হয়েছে। মৌলবাদীদের এ হামলা প্রতিহত করতে আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা দলীয় কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নেন। এদিকে, বায়তুল মোকাররমে জুম্মার নামাজ পড়তে আসা ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব হুমায়ুন কবিরের উপর হামলা চালায় মৌলবাদীরা। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগ এর ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা’র উপরও হামলা করেন তারা। মৌলবাদীদের হামলার উদ্দেশ্য কি মোদির বিরুদ্ধে না সরকারের বিরুদ্ধে এমনটাই প্রশ্ন ছিল অনেকের। জাতীয় মসজিদের টাইলস ভেঙে কেন পুলিশের উপর হামলা করতে হলো? কেন সাধারণ মুসল্লিদের জিম্মি করে নাশকা করা? কেন অস্ত্র নিয়ে মৌলবাদীদের মসজিদে প্রবেশ। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগ এর ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রেজা আহত হয়েও পুলিশের পাশাপাশি নেতাকর্মীদের নিয়ে রাস্তায় অবস্থান নেন। মৌলবাদীরা যেন রাস্তায় নেমে সাধারণ মানুষের জান-মালের ক্ষতি না করতে পারেন। যুবলীগের প্রায় ৮০জন নেতাকর্মী আহত হলেও নেতাকর্মীদের নিয়ে রাজপথে ছিলেন রেজাউল করিম রেজা। দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব হুমায়ুন কবিরকে রক্ষা করতে গিয়ে আহত হন নগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মহি উদ্দিন মহি, সদস্য আনিসুর রহমান সরকার আনিস, সহ-দপ্তর আরিফুল ইসলাম রাসেলসহ অনেকে। গুরুতর আহত হন ৪নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা তানি, ৭৪নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা হালিম সরকার। ৪নং ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা নূরে আলম জীবন, সবুজবাগ থানা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান শাহরিয়ার, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের সহ দপ্তর সম্পাদক আরিফুর রহমান আরিফ, গুরুতর আহত হন ৭৪নং ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর ও যুবলীগের সভাপতি আবুল কালম আজাদসহ অনেকেই।


রেজাউল করিম রেজার নেতৃত্বে রাজপথে নিয়ন্ত্রণ ছিলো দক্ষিণ যুবলীগের নেতাকর্মীদের দখলে। এসময় দক্ষিণ যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাইনুদ্দিন রানাও নেতাকর্মীদের সাথে ব্যাপক মহড়া দেন। পরবর্তীতে কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খাঁন নিখিলও আহত নেতাকর্মীদের খোঁজ নিতে গুলিস্তান পার্টি অফিসে ছুটে আসেন। এবং ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগকে মাঠে থাকার নির্দেশনা দেন তিনি।

আজও যুবলীগের নেতাকর্মীরা মাইনুদ্দিন রানা ও রেজাউল করিম রেজার নেতৃত্বে রাজপথে আছেন।

Sharing is caring!

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Error Problem Solved and footer edited { Trust Soft BD }
এই বিভাগের আরো খবর পড়ুন

সর্বশেষ সংবাদ

© All rights reserved © 2017-2021 www.unlimitednews24.com
Web Design By Best Web BD