ডেস্ক নিউজঃ স্প্যানিশ লা লিগে টানা চতুর্থ জয়ে পয়েন্ট টেবিলের তিনে উঠে এলো বার্সেলোনা। অধিনায়ক মেসিকে ছাড়াই প্রতিপক্ষের মাঠ থেকে জয় নিয়ে ফেরে রোনাল্ড কোম্যানের দল। যদিও মাঝে অন্য দুটি প্রতিযোগিতায় হতাশাজনক পারফরম্যান্স ছিল তাদের।

রোববার (২৪ জানুয়ারি) রাতে এলচের মাঠে ২-০ গোলে জিতে বার্সা। সৌভাগ্যের ছোঁয়ায় ডি ইয়ং দলকে এগিয়ে নেয়ার পর শেষ দিকে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন রিকি পুস।

ম্যাচের ৩৯তম মিনিটে এগিয়ে যায় বার্সেলোনা। বাঁ দিক থেকে মার্টিন ব্রাথওয়েট ডি-বক্সে অঁতোয়ান গ্রিজমানকে লক্ষ্য করে ক্রস বাড়ান, সেটাই ঠেকাতে গিয়ে ডিফেন্ডার দিয়েগো গনসালেসের বাড়ানো পায়ে লেগে বল প্রায় গোললাইন পেরিয়েই গিয়েছিল। একেবারে শেষ মুহূর্তে বলে পা ছুঁইয়ে গোল নিশ্চিত করেন ডি ইয়ং। ১-০ লিড নিয়ে বিরতিতে যায় বার্সেলোনা।

দ্বিতীয়ার্ধ্বেও এলচেকে চেপে ধরে রোনাল্ড কোম্যানের শিষ্যরা। তবে কাঙ্খিত গোলের দেখা পাচ্ছিলোনা তারা। বেশ কয়েকবার সুযোগ মিস করা ডেম্বেলেকে তুলে পর্তুগিজ উইঙ্গার ত্রিনকাওকে মাঠে নামান কোম্যান। তাতেও কাজের কাজ হচ্ছিলো না।

ম্যাচের ৮৭ মিনিটে রিকি পুইগকে নামান কোম্যান। মাঠে নামার মাত্র ২ মিনিটের মাথায় নাম তোলেন স্কোরশিটে। ৮৯তম মিনিটে ডান দিকের বাইলাইনের কাছ থেকে ডি ইয়ংয়ের বাড়ানো ক্রসে লাফিয়ে হেডে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন তরুণ স্প্যানিশ মিডফিল্ডার।

এ নিয়ে টানা ১১ ম্যাচে এলচের বিপক্ষে অপরাজিত রইলো বার্সেলোনা। একই সঙ্গে টানা টানা চতুর্থ জয়ে তিনে উঠে এলো বার্সেলোনা।

১৯ ম্যাচে ১১ জয় ও চার ড্রয়ে ৩৭ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে বার্সেলোনা। ৩ পয়েন্ট বেশি নিয়ে দুইয়ে রিয়াল মাদ্রিদ। আর ১৭ ম্যাচে ৪৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ।

Sharing is caring!