স্প্যানিশ লা লিগায় লেভান্তের বিপক্ষে কষ্টার্জিত জয় পেয়েছে বার্সেলোনা। ঘরের মাঠে মেসির একমাত্র গোলে লেভান্তেকে হারিয়েছে তারা। এর মধ্য দিয়ে দুই হারের পর জয়ের দেখা পেল বার্সেলোনা।

রোববার রাতে ন্যু ক্যাম্পে লেভান্তের বিপক্ষে বার্সা প্রভাব বিস্তার করে খেললেও প্রথমার্ধে তারা জালের নাগাল পায়নি। ম্যাচের ৭৫ মিনিট পর্যন্ত বার্সেলোনাকে আটকে রেখেছিল লেভান্তে। শেষ পর্যন্ত ৭৬তম মিনিটে এই অচলবস্থার অবসান ঘটান মেসি।

লিগে খুব বাজে সময়ের মধ্য দিয়ে পথচলা বার্সেলোনা শুরু থেকেই প্রতিপক্ষের গোলমুখে আক্রমণ চালাতে থাকে। তবে লেভান্তেও পাল্টা আক্রমণে প্রতিপক্ষকে ব্যস্ত রাখে। ফলে জমে ওঠা লড়াইয়ে প্রথমার্ধে কোনো দলই গোল পায়নি।

তবে ম্যাচের ৬১ মিনিটে গ্রিজম্যানের শট বারের ওপর দিয়ে চলে না গেলে হয়ত আনন্দে ভাসতে পারতো সমর্থকরা। ৭০ মিনিটে মেসিকে হতাশ করেছেন লেভান্তে গোলরক্ষক ফারনান্দেজ। কিন্তু ৭৬ মিনিটে আর নিজের দূর্গ সুরক্ষিত রাখতে পারেননি ২৯ বছর বয়সী লেভান্তের গোলরক্ষক। ডি ইয়ংয়ের পাসে কোনাকুনি শটে গোল করেন রেকর্ড ছয়বারের বর্ষসেরা ফুটবলার মেসি।

এটা ছিল বার্সেলোনার জার্সি গায়ে তার ৬৪২তম গোল। এই গোলের মধ্য দিয়ে একটি ক্লাবের হয়ে সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতা পেলের আরও কাছে পৌঁছে গেলেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক। পেলে সান্তোসের হয়ে করেছিলেন ৬৪৩ গোল। আর একটি গোল করলেই পেলেকে ছুঁয়ে ফেলবেন মেসি।

গত সপ্তাহে কাদিসের মাঠে হারের পর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে জুভেন্টাসের বিপক্ষে হেরেছিল বার্সেলোনা। জুভেন্টাসের বিপক্ষে ম্যাচে কোনো গোল না পেলেও এবার সমর্থকদের আশাহত করেননি মেসি।

এই জয়ে পয়েন্ট টেবিলেও উন্নতি হয়েছে রোনাল্ড কোম্যানের শিষ্যদের। ১১ ম্যাচ থেকে ১৭ পয়েন্ট সংগ্রহ করে তারা উঠে এসেছে পয়েন্ট টেবিলের অষ্টম স্থানে।

Sharing is caring!