প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। ফলে পাকিস্তান সুপার লিগের (পিএসএল) আসন্ন প্লে-অফের ম্যাচে মুলতান সুলতানস’র হয়ে খেলতে পারবেন না তিনি। এমনকি আসন্ন বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টেও তার খেলা নিয়ে শংকা জেগেছে।

পিএসএলে মাহমুদুল্লাহর পরিবর্তে ইংল্যান্ডের মঈন আলিকে দলে নিয়েছে মুলতান সুলতানস। পিএসএল খেলতে আগামীকাল ঢাকা ছাড়ার কথা ছিলো মাহমুদুল্লাহর। তবে বাংলাদেশ থেকে একমাত্র তামিম ইকবালই এখন পিএসএল খেলতে যাবেন। অস্ট্রেলিয়ার ক্রিস লিনের পরিবর্তে তামিমকে দলে ভেড়ায় লাহোর কালান্দার্স।

এদিকে, নিজের করোনায় আক্রান্তের বিষয়টি নিজেই নিশ্চিত করেছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। দু’বার করোনা পরীক্ষা করান তিনি। দু’বারই তার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। ফলে নিজ বাসায় আলাদা রুমে আইসোলেশনে আছেন রিয়াদ।

ইএসপিএনক্রিকইনফোকে মাহমুদুল্লাহ বলেন, ‘গত ৬ নভেম্বর করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসায় আমি অবাকই হয়েছি। আমার সামান্য ঠান্ডা ছাড়া জ্বর বা অন্য কোনও লক্ষণ নেই। আমি শনিবার দ্বিতীয়বারের মতো করোনা পরীক্ষা করাই এবং সেটিও পজিটিভ আসে। আমি এখন আলাদা রুমে বিশ্রামে আছি। আমি আমার স্ত্রী ও সন্তানদের নিয়ে কিছুটা চিন্তিত। নিজের দ্রুত সুস্থতা ও আমার পরিবারের জন্য সকলের কাছে আমি দোয়া চাইছি।’

পিএসএল খেলতে না পারার হতাশাও ঝরেছে মাহমুদুল্লাহর কণ্ঠে। তবে বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে খেলার আশা করছেন তিনি, ‘পিএসএল খেলার সুযোগটি মিস করে আমি হতাশ। এটি একটি প্রতিযোগিতামূলক টুর্নামেন্ট। বেশ কয়েকটি ম্যাচ খেলার ভালো সুযোগ ছিলো। আমি এখন দ্রুত সুস্থ হতে চাই এবং বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে খেলতে চাই।’

এদিকে, জাতীয় দলের এই তারকার করোনাক্রান্তের খবরে সমবেদনা ও আশু রোগমুক্তি কামনা করেছেন মুশফিক, রুবেলসহ সতীর্থ খেলোয়াড়রা।

Sharing is caring!