র‌্যাব-১০ এর অভিযানে তুষের বাস্তা হতে বিপুল পরিমাণে ফেনসিডিলসহ ০৪ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার।

র‌্যাব-১০, সিপিসি ৩, ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার মেজর মোহাম্মদ আনিসুজ্জামান এর নেতৃত্বে আভিযানিক দল ডিএমপি ঢাকার চকবাজার মডেল থানাধীন, কামালবাগ মদিনা পেট্রোল পাম্পের পশ্চিম পাশে রিভার ভিউ প্রজেক্ট এর নির্মাণাধীন ভবনের সামনে পাকা রাস্তার উপর ১৫/১০/২০২০ তারিখে সকাল ০৬.০০ ঘটিকার সময়। মাদকবিরোধী অভিযানে ০৪ জন মাদক ব্যবসায়ী ১। মোঃ মিঠুন (২২), পিতা-মোঃশহিদুল , স্থায়ী ঠিকানা-ঝাউবন , থানা-বিরামপুর , জেলা-দিনাজপুর, বর্তমান ঠিকানা -ক/৩৮, (শামসুন্নাহার এর বাড়ির ভাড়াটিয়া ), থানা- গুলশান, ডিএমপি, ঢাকা,২। মোঃ আজিজ (৩৮), পিতা- মৃত আব্দুল খালেক , স্থায়ী ঠিকানা- কারিকারপাড়া, থানা-ঝিকরগাছা , জেলা -যশোর ,৩। মোহাম্মদ আজম (৩৭), পিতাঃ মোঃ ফজলু, স্থায়ী ঠিকানা-শ্রীপুর, থানা-হাজিগঞ্জ, জেলা-চাঁদপুর, বর্তমান ঠিকানা – ক /৩৮, (শামসুন নাহারের বাড়ির ভাড়াটিয়া), শাহজাদপুর, থানা গুলসান, ডিএমপি ঢাকা, ৪। রুহুল আমিন (২০), পিতা- মোঃ আনারুল, স্থায়ী ঠিকানা- দৌলাদি, থানা – যশোর সদর, জেলাঃ যশোরদের কে হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়। উক্ত আসামিদের নিকট হইতে ৭৮০ বোতল ফেনসিডিল , ০১ চোরাচালান কাজে ব্যবহৃত ট্রাক, ০৬ টি মোবাইল ফোন এবং নগদ ১৮১০০/- টাকা সহ উদ্ধার করা হয়। ধৃত আসামিদের কে জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করে যে তারা পরস্পর যোগসাজশে ও সহযোগিতায় বাংলাদেশের সীমান্তবর্তী বিভিন্ন এলাকা থেকে ট্রাক যোগে চোরাচালানের মাধ্যমে মাদক দ্রব্য ফেনসিডিলের চালান রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় সরবরাহ করে থাকে।
ডিএমপি ঢাকার চকবাজার মডেল থানায় গ্রেফতারকৃত আসামিদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইন ১৯৭৪ এর ২৫-বি/২৫-ডি ধারায় অপরাধ করেছে মামলা হয়েছে।

Sharing is caring!