শেখ হাসিনার জন্যই বাংলাদেশের গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা পেয়েছে, সংবিধান সমুন্নত হয়েছে এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ফিরে এসেছে বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস।

ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস আজ বাদ যোহর জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর ৭৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত দোয়া মাহফিল শেষে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে এ মন্তব্য করেন।

ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস এ সময় বলেন, শেখ হাসিনা আমাদের মাঝে ফিরে এসেছিলেন বলেই আমরা যুদ্ধাপরাধীদের বিচার সম্পন্ন করতে পেরেছি, বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার সম্পন্ন করতে পেরেছি। দেশে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ফিরে আসতে পেরেছে এবং অসাম্প্রদায়িক রাজনীতি পুনঃপ্রতিষ্ঠা পেয়েছে।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের লালিত স্বপ্ন সোনার বাংলার অর্থনৈতিক মুক্তি। জাতির পিতার সেই স্বপ্ন জননেত্রী শেখ হাসিনা বাস্তবায়ন করে চলেছেন জানিয়ে এ সময় ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ তাপস আরও বলেন, আজ থেকে এক যুগ আগেও আমাদের মাথাপিছু আয় ছিল মাত্র ৬০০ মার্কিন ডলার, বর্তমানে মাথাপিছু সেই আয় ২০০০ মার্কিন ডলার। আজ আমরা নিজেদের অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মাণ করছি। তাই, দেশের উন্নতি ও অগ্রগতির ধারা অব্যাহত
রাখতে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই। জন্মদিনের শুভক্ষণে আমরা মহান আল্লাহপাকের কাছে তাঁর সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করি।

এসময় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও কৃষিমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক বলেন, শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বে আজ বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের পাশাপাশি ভৌত-অবকাঠামোগত উন্নয়ন সম্ভব হয়েছে। দেশের রাস্তা-ঘাট, স্কুল-কলেজ, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি, শিল্প, স্বাস্থ্য ও শিক্ষাসহ সকল ক্ষেত্রেই অভূতপূর্ব উন্নয়ন সাধিত হয়েছে।

এসময় কৃষিমন্ত্রী আরও বলেন, শেখ হাসিনা শুধু উন্নয়নের নেত্রীই নন, মানবতারও অনন্য উদাহরণ। আমাদের মত একটি ঘনবসতিপূর্ণ ও স্বল্পোন্নত দেশে তিনি বিপদাপন্ন ১০ লাখ রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিয়েছেন।

আলোচনা সভা শেষে প্রধানমন্ত্রীর সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা এবং দেশ ও জাতির উন্নয়ন-অগ্রগতি প্রার্থনা করে বায়তুল মোকাররম মসজিদের পেশ ইমাম মুফতি মাওলানা মিজানুর রহমান বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করেন।

ঢাকা দক্ষিণ মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. হুমায়ুন কবিরের সঞ্চালনায় উক্ত দোয়া মাহফিল ও সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভায় ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী সেলিম, চাঁদপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য নুরুল আমিন রুহুল, ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এবিএম আমিন উল্লাহ নূরী, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক আনিস মাহমুদ, ধর্ম মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ আলতাফ হোসেন চৌধুরী, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী মোরশেদ হোসেন কামাল, ডিএসসিসি সচিব আকরামুজ্জামান, ইসলামিক ফাউন্ডেশন বঙ্গবন্ধু পরিষদের আহ্বায়ক ও বায়তুল মোকাররম মসজিদ মার্কেটের পরিচালক মহিউদ্দিন মজুমদার, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন থানা, ওয়ার্ড ও ইউনিটের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Sharing is caring!