সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু রহস্যের তদন্ত এখনও চলছে। মাদক নেওয়ার অপরাধে গ্রেফতার হয়েছেন সুশান্তের প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী। তবেই রিয়াই সুশান্তের প্রথম প্রেমিকা ছিলেন না। এর আগে অঙ্কিতা লোখান্ডে, কৃতি শ্যাননের মতো অভিনেত্রীদের সঙ্গে ভালবাসার সম্পর্কে জড়িয়ে ছিলেন তিনি।

সম্প্রতি প্রকাশ্যে এসেছে সুশান্ত সিংহ রাজপুতের বছর দু’য়েক আগে হাতে লেখা কিছু নোট। যেখানে বন্ধু মহেশ এবং দিদি প্রিয়াঙ্কার সঙ্গে চেয়েছিলেন সময় কাটাতে।
‘ইন্ডিয়া টুডে’র একটি রিপোর্ট থেকে জানা যাচ্ছে, ২০১৮-র ২৭ এপ্রিল ওই ‘ডেইলি চার্ট’ তৈরি করেছিলেন সুশান্ত। তাতে প্রথমেই লেখা ছিল রাত আড়াইটের সময় ঘুম থেকে উঠবেন তিনি। খাবেন ‘সুপারম্যান’ চা এবং এর পরেই বেদমন্ত্র জপের পর গোসল করবেন।
তবে ওই ডায়রির পৃষ্টায় সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য জিনিস হল ৮ নম্বর পয়েন্টটি। সেখানে নীল কালিতে লেখা ‘কৃতির সঙ্গে সময় কাটাব’। তাতে লাল টিক করা। তার মানে নেহাতই বন্ধু না, অভিনেত্রী কৃতি শ্যাননের সঙ্গেও সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন সুশান্ত।
আগামী কয়েক দিনে কী কী করতে চলেছেন তা যে সবিস্তার ডায়েরিতে লিখে রাখতেন সুশান্ত সে কথা আগেই জানিয়েছিলেন সুশান্ত ঘনিষ্ঠরা। প্রাক্তন প্রেমিকা অঙ্কিতা তো বলেছিলেন, শুধু কয়েক দিন নয়, আগামী পাঁচ বছরে তার কী কী পরিকল্পনা তাও ছকে রাখতেন অভিনেতা।
দু’বছর পর খুঁজে পাওয়া ওই নোটে আরও দেখা যাচ্ছে, সুশান্ত তার ‘টু ডু’ লিস্টে লিখে রেখেছেন ‘কেদারনাথ’ স্ক্রিপ্ট পড়ার কথাও। এখানেই শেষ নয়, ওই পাতারই তিন নম্বর পয়েন্টে লেখা রয়েছে ‘নো স্মোকিং’। তার উপরে লাল কালিতে টিক মার্ক। সুতরাং ধারণা করা যায়, ২০১৮ নাগাদ সিগারেট ছাড়তে চেয়েছিলেন সুশান্ত।
শুধু ওই একটি ‘টু ডু’ লিস্টই নয়। পাওয়া গিয়েছে সুশান্তের হাতে লেখা আরও বেশ কয়েকটি পাতা। তাতে কোনওটায় হিজিবিজি। আবার কোনওটায় কবির, রুমির লেখা কিছু উদ্ধৃতি। রয়েছে নীতি আয়োগের কথা, নাসার প্রসঙ্গও। এখানেই শেষ নয়,‘তৃতীয় চক্ষু’র কথারও উল্লেখ আছে। সুশান্ত লিখেছিলেন, পুরাণে যা তৃতীয় চক্ষু, বিজ্ঞানে তাই পিনাল গ্রন্থি। উল্লেখ রয়েছে সোমরস, কৈলাস, তপস্যা ইত্যাদি শব্দেরও।
সুশান্তের মৃত্যু আত্মহত্যা না তাতে লুকিয়ে অন্য রহস্য সে বিষয়ে আগামিকাল রিপোর্ট দেবে এইমস-এর ডাক্তাররা।

Sharing is caring!