অক্টোবরেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরছে বাংলাদেশ

টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ পেছানোয় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোর একটি বাংলাদেশ। চলতি বছরে আর কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচ না খেলতে পারার শঙ্কা তৈরি হয়েছিল। তবে এবার বোধহয় তামিম-মুশফিকদের জন্য সুখবর আসতে যাচ্ছে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের মাধ্যমে অক্টোবরে আবারো মাঠের ক্রিকেটে ফিরতে পারে বাংলাদেশ। সিরিজটি নিয়ে এরইমধ্যে আলোচনা শুরু করেছে দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড।

লঙ্কানদের বিপক্ষে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজটি হওয়ার কথা ছিল জুলাই-আগস্টে। করোনাভাইরাসের আগ্রাসনে গেল এপ্রিলে সিরিজ স্থগিত করতে সম্মত হয় দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড। এরপর টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপের শিডিউল থাকায়, কবে নাগাদ সিরিজটি আয়োজন করা হবে এ নিয়ে শঙ্কা ছিল দুই বোর্ডেরই। তবে শেষপর্যন্ত বিশ্বকাপ স্থগিত হওয়ায়, আবারো টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের এই সিরিজটি নিয়ে আলোচনা শুরু করেছে দুই দেশের বোর্ড। আলোচনা ফলপ্রসূ হলে, আগামী অক্টোবরেই মাঠে ফিরতে পারে বাংলাদেশ।

এরই প্রেক্ষিতে এরইমধ্যে শ্রীলঙ্কায় হাইপারফরম্যান্স দল পাঠাচ্ছে বাংলাদেশ। যতোদ্রুত সম্ভব জাতীয় দলকেও সেখানে পাঠাতে চায় বিসিবি।

ভারত ভিত্তিক ক্রিকেটের জনপ্রিয় গণমাধ্যম ইএসপিনক্রিকইনফোকে দেয়া সাক্ষাৎকারে বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন বলেন, বিশ্বকাপ পেছানোয় আমাদের জন্য দ্বিপাক্ষিক সিরিজগুলোর দিকে নজর দেয়ার সুযোগ তৈরি হয়েছে। আমাদের স্থগিত হয়ে পড়া সিরিজগুলোর দিকে আমরা নজর দিচ্ছি। তালিকায় সবার আগেই আছে শ্রীলঙ্কা সিরিজ।

করোনার আগ্রাসন শুরুর পর থেকে একে একে স্থগিত হতে থাকে বাংলাদেশের সিরিজগুলো। পেছানো হয় অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডের বাংলাদেশ সফর, টাইগারদের আয়ারল্যান্ড সফর, পাকিস্তান সফর ও শ্রীলঙ্কা সফর। এবার স্থগিত হওয়া সিরিজগুলোর পূনরায় আয়োজনের জন্য একে একে সবগুলো বোর্ডের সঙ্গেই আলোচনা করবে বিসিবি।

Sharing is caring!