আনলিমিটেড নিউজ ডেস্কঃ করোনার সংক্রমণ থেকে বাঁচতে মসজিদে না এসে ঘরে নামাজ পড়তে আহবান জানিয়েছেন বলিউডের অভিনেতা সালমান খান। সম্প্রতি এক ভিডিওবার্তায় তিনি বলেছেন, ‘আল্লাহ সবখানে আছেন। তাই পরিবারের সঙ্গে ঘরে বসে নামাজ পড়লেও তাকে পাওয়া যাবে। এই সংকটময় সময়ে সরকারি নিয়ম মানুন। লকডাউন ভেঙে মসজিদে আসার দরকার নেই। ঘরেই আল্লাহকে ডাকুন।’

ভারতীরা পুলিশ ও চিকিৎসকদের ওপর পাথর নিক্ষেপ করেছেন যার সমালোচনাও করেন এ অভিনেতা। বিষয়টিকে ন্যাক্কারজনক বলেও অভিহিত করেন তিনি।

লকডাউনের কারণে তার সব কাজ স্থগিত এবং নিজের বাবাকে টানা তিন সপ্তাহ ধরে দেখেননি বলেও উল্লেখ করেন সালমান। তিনি বলেন, ‘প্রশাসন রাস্তায় অকারণে ঘুরতে থাকা মানুষদের ঘরে পাঠাচ্ছেন তাদের সুস্থ থাকার জন্য। তারা আপনাদের ভালোর জন্য করছেন এটা। আর আপনারা তাদের ওপর চড়াও হচ্ছেন! পাথর ছুঁড়ছেন! এভাবে তাদের ওপর অত্যাচার চালানোর অধিকার নেই কারোর। প্রশাসনের কথা শুনে লকডাউন না মানলে প্রয়োজনে দেশ এবং দেশবাসীর স্বার্থে সেনাবাহিনি নামাতে হবে।’

লকডাউনে তিন সপ্তাহ ধরে পানভেলে নিজের ফার্ম হাউজে মা সালমা খান, বোন অরপ্রিতা খান, বোনের স্বামী আয়ুশ শর্মা এবং ভাই সোহেল খানের ছেলে নির্বাণকে নিয়ে থাকছেন সালমান। অন্যদিকে মুম্বাইয়ের বাড়িতে একা দিন পার করছেন বাবা সেলিম খান।

Sharing is caring!