বঙ্গবন্ধু বিপিএলে সেরা পাঁচে এগিয়ে বাংলাদেশিরা

বঙ্গবন্ধু বিপিএলে শেষ হয়েছে গ্রুপ পর্ব। এ পর্যন্ত সাফল্যের দিক থেকে বিদেশি খেলোয়াড়দের চেয়ে কোন অংশেই পিছিয়ে নেই বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা। বরং তালিকায় এগিয়েই রয়েছে বাংলাদেশের বোলার-ব্যাটসম্যানরা। সেরা পাঁচ রান সংগ্রাহকের তালিকায় তিন জনই বাংলাদেশি।

গ্রুপ পর্ব শেষে রান সংগ্রাহকের তালিকায় শীর্ষে আছেন যারাঃ-

১) রাইলি রুশো (খুলনা টাইগার্স): রাউন্ড রবিন লিগ শেষে এখন পর্যন্ত রান সংগ্রাহকের তালিকায় শীর্ষে আছেন রাইলি রুশো। ১২ ম্যাচে ৫০.৮৯ গড়ে ৪৫৮ রান করেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার এই ব্যাটসম্যান।

২) মুশফিকুর রহিম (খুলনা টাইগার্স): রান সংগ্রাহকের দুই নম্বরে বাংলাদেশের ডিপেন্ডেবল ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। খুলনা টাইগার্সের এই অধিনায়ক ১২ ম্যাচে ৭৪.৮৩ গড়ে করেছেন ৪৪৯ রান।

৩) ডেভিড মালান (কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স): তৃতীয় স্থানে আছেন আরেক বিদেশি ব্যাটসম্যান ডেভিড মালান। তবে তার দল ছিটকে গেছে টুর্নামেন্ট থেকে। ১১ ইনিংসে তার সংগ্রহ ৪৪৪ রান।

৪) লিটন দাস (রাজশাহী রয়্যালস): দীর্ঘদিন ফর্মহীন থেকে নিজেকে ফিরে পেয়েছেন বাংলাদেশি এ ওপেনার। ১২ ম্যাচে ৩৮.৩৬ গড়ে তিনি করেছেন ৪২২ রান।

৫) ইমরুল কায়েস (চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স): এ টুর্নামেন্টের মাধ্যমে আলোচনায় এসেছেন বাংলাদেশের এক সময়ের হার্ট-হিটার এ ব্যাটসম্যান। ১১ ম্যাচে ৫৭.৮৬ গড়ে ৪০৫ রান করেছেন তিনি।

বোলাদের মধ্যে বেশি উইকেট শিকারের তালিকায় যাদের নামঃ-

১) মুস্তাফিজুর রহমান (রংপুর রেঞ্জার্স): বাংলাদেশের জনপ্রিয় কাটার মাস্টার মুস্তাফিজকে নিয়ে অনেক সমালোচনার জন্ম দিয়েছিলো। ক্রিকেট ভক্তদের ধারণা তিনি হয়তো আর তার স্বরূপে ফিরতে পারবেন না। কিন্তু সমালোচকদের মুখ বন্ধ করে বঙ্গবন্ধু বিপিএলে সেরা উইকেট শিকারির তালিকায় আছেন মুস্তাফিজ। ১১ ম্যাচে ১৯ উইকেট নিয়ে তালিকার এক নম্বরে তার নাম।

২) মেহেদী হাসান রানা (চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স): বেশি উইকেট শিকারির তালিকার দ্বিতীয় স্থানেও রয়েছেন আরেক বাংলাদেশির নাম। মাত্র ৮ ম্যাচ খেলে তার উইকেটের সংখ্যা ১৭।

৩) রুবেল হোসেন (চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স): তালিকার শীর্ষ তিন নম্বরে আছেন চট্টগ্রামের আরেক বোলার বাংলাদেশি রুবেল হোসেন। ১০ ম্যাচ খেলে তার উইকেটের সংখ্যা ১৬।

৪) ফ্রাইলিঙ্ক (খুলনা টাইগার্স): শীর্ষ উইকেট শিকারির তালিকায় বিদেশিদের মধ্যে প্রথম নাম তার। টুর্নামেন্টে ৫ উইকেট শিকারের রেকর্ডও আছে তার নামের পাশে। খুলনার এ বোলার ১০ ম্যাচ খেলে নেন ১৫ উইকেট।

৫) মুজিব উর রহমান (কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স): টুর্নামেন্ট থেকে বাদ পড়া কুমিল্লার এ বোলার আলো ছড়িয়ে দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছেন। রান হিসেবি এ বোলার ১১ ম্যাচ খেলে ১৪ উইকেট নিয়ে তালিকার সেরা পাঁচে জায়গা করে নিয়েছেন।

তবে টুর্নামেন্টের সেরা দশ বোলারের তালিকায় থাকা বাকি চার জনই বাংলাদেশি। তারা হলেন, শাহিদুল ইসলাম, এবাদত হোসেন, সৌম্য সরকার ও আল-আমিন হোসেন।