আনলিমিটেড নিউজঃ কক্সবাজারের টেকনাফে বিজিবির সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই যুবক নিহত হয়েছেন। সোমবার ভোররাতে উপজেলার দক্ষিণ দমদমিয়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

 

 

নিহতরা হলেন- মো. জামাল (২৭) ও মোহাম্মদ ইউনুস (২১)। তাদের বিস্তারিত পরিচয় পাওয়া যায়নি।

 

 

 

বিজিবি বলছে, নিহতরা মাদক কারবারি। তাদের সঙ্গে গোলাগুলিতে তিনজন বিজিবি সদস্য আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে ৫০ হাজার পিস ইয়াবা, দুটি লম্বা বন্দুক, তিন রাউন্ড বুলেট ও তিনটি কিরিচ জব্দ করা হয়েছে।

 

 

 

টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান জানান, টেকনাফের দক্ষিণ দমদমিয়া এলাকায় ইয়াবার চালান মজুতের খবর পেয়ে ভোররাতে বিজিবির দমদমিয়া বিওপির একটি দল ওই এলাকায় গিয়ে অবস্থানে নেয়। কিছুক্ষণ পর কিছু মানুষের নড়াচড়ার শব্দ পেয়ে বিজিবি সদস্যরা তাদের ঘিরে আত্মসমর্পণের আহ্বান জানান। তারা এতে সম্মত না হয়ে বিজিবিকে লক্ষ্য করে গুলি করতে শুরু করে। এ সময় বিজিবির তিনজন সদস্য আহত হন। তখন বিজিবি সদস্যরা নিরুপায় হয়ে সরকারি সম্পদ এবং জীবন রক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোড়ে। কিছুক্ষণ পর পরিস্থিতি শান্ত হলে ঘটনাস্থলে তল্লাশি চালিয়ে ৫০ হাজার পিস ইয়াবা, দুটি দেশীয় তৈরি লম্বা বন্দুক, তিন রাউন্ড বুলেট ও তিনটি ধারালো কিরিচসহ গুলিবিদ্ধ দুই ব্যক্তিকে উদ্ধার করা হয়।

 

 

 

তিনি আরও জানান, আহত বিজিবি সদস্য ও গুলিবিদ্ধ দুই ব্যক্তিকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য উপজেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। সেখানে আহত বিজিবি সদস্যরা চিকিৎসাধীন থাকলেও গুলিবিদ্ধ দুই ব্যক্তিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

 

 

 

লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান জানান, দুজনের পকেটে পাওয়া ছবিতে নাম পাওয়া গেলেও পরিচয় জানা যায়নি। তাই তারা বাংলাদেশী না রোহিঙ্গা তা বলা যাচ্ছে না। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও তিনি জানান।